• শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ০৩:০১ পূর্বাহ্ন
  • [gtranslate]

ভুয়া ব্যালট পেপার প্রদর্শন করে সংবাদ সম্মেলন

নিজস্ব প্রতিনিধি
প্রকাশিত : মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর, ২০২১

ভুয়া ব্যালট পেপার প্রদর্শন করে সংবাদ সম্মেলন
আমাদের রংপুর ডেক্স : লালমনিরহাটের কালীগঞ্জের চন্দ্রপুর ইউনিয়নের উপজেলা বিএনপির আববায়ক ও স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী মোঃ জাহাঙ্গীর আলম (মোটরসাইকেল মার্কা) সংবাদ সম্মেলনে দাবী করলেন, আমি বিজয়ী হয়েছি। আমার বিজয় এটা সুনিশ্চিত। আমাকে যড়ষন্ত্র করে তারা ঝুলিয়ে রেখেছে। নির্বাচন কমিশনের কাছে দাবী করছি আমাকে বিজয়ী করা হোক। আমাকে বিজয়ী ঘোষনা করা না হলে আমি ট্রাইবুনালে যাবো। সোমবার রাত ৮ টায় নিজ বাড়িতে সংবাদ সম্মেলন করে তিনি এ দাবি করেন।
সংবাদ সম্মেলনে নৌকায় সীল মারা ২০ টি ব্যালট পেপার প্রদর্শন করে জাহাঙ্গীর বলেন, গোসাইরহাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রের ওয়াস রুমের ভিতর থেকে নৌকা মার্কার সীল মারা ২০টি ভুয়া ব্যালট পেপার স্থানীয়রা উদ্ধার করেছেন। এগুলো ব্যালট নৌকার প্রার্থী মাহাবুবর রহমানের। এসব নৌকার কর্মীরা ভোট বাক্সে রাখার সময় না পেয়ে ফেলে রেখেছে। এভাবে ভুয়া ব্যালট দিয়ে নৌকার ভোট বাড়িয়ে সমান অবস্থানের ফলাফল তৈরি করে ফলাফল স্থগিত করা হয় বলেও দাবি করেন জাহাঙ্গীর।
তিনি লিখিত বক্তব্যে বলেন, চন্দ্রপুর ইউনিয়নের ভোট গ্রহণ শেষে ১১টি কেন্দ্রের মধ্যে যখন ৮ টি কেন্দ্রের ফলাফলে আমি এগিয়ে ছিলাম তখন উত্তর বালাপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্র দখল করে প্রিজাইডিং অফিসারকে তালাবদ্ধ রেখে এবং পোলিং এজেন্টকে মারধর করে বিভিন্ন অনিয়ম করে ইচ্ছামত ফলাফল সীট তৈরি করে প্রিজাইডিং অফিসারের স্বাক্ষর গ্রহণ করে। এ বিষয়ে নির্বাচন সংশ্লিষ্টদের অভিযোগ করলেও তারা কোন প্রকার ব্যবস্থা গ্রহন করেনি। এছাড়াও কোন কোন কেন্দ্রে চেয়ারম্যান ও সদস্যদের ভোটের কোন মিল নেই।
এবিষয়ে জানতে চাইলে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থী মাহাবুবর রহমানের বলেন, স্থানীয় সমর্থকদের মাধ্যমে নৌকায় সিল মারা ব্যালটের বিষয়ে শুনেছি। এসব ব্যালট তাদের কাছে কেন? এটা তো নির্বাচন সংশ্লিষ্ট ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনী উদ্ধার করার কথা। তারা নৌকার ভোট কমাতে ব্যালট চুরি করেছে। তাদের কাছে থাকা ব্যালটগুলো উদ্ধার করে গণনায় সম্পৃক্ত করতে প্রশাসনকে মৌখিকভাবে অনুরোধ করেছি। আমি লিখিত অভিযোগ দায়ের করব।
কালীগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মাহবুবা রহমান জানিয়েছেন, ভুয়া ব্যালট পেপার উদ্ধারের বিষয়ে কিছু জানিনা। নিমানুযায়ী ওই ইউনিয়নে আবারও ভোটগ্রহন অনুষ্ঠিত হবে। কোন অনিয়মের অভিযোগ পাইনি।
উল্লেখ্য, রোববার তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে চন্দ্রপুর ইউনিয়নের আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মোঃ মাহবুবর রহমান ও স্বতন্ত্র প্রার্থী কালীগঞ্জ উপজেলা বিএনপির আহবায়ক মোঃ জাহাঙ্গীর আলম দুজনেই ৯৮৪০ ভোট পেয়ে সমান অবস্থানে রয়েছেন। যার ফলে এ ইউনিয়নের নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা করেনি রির্টানিং কর্মকর্তা। বাকী ৭ টি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থী ৩ টিতে, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ২টিতে এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী ২ টিতে নির্বাচিত হয়েছেন।


এ জাতীয় আরও খবর :